ঢাকা, সোমবার, ৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯

ও যে কঠোর পরিশ্রম করে ‘আল্লাহ তো দেখেন’; মালিক তো তিনিই : মুশফিকের বাবা

২০২২ মে ২৫ ১৪:১৩:২১
ও যে কঠোর পরিশ্রম করে ‘আল্লাহ তো দেখেন’; মালিক তো তিনিই : মুশফিকের বাবা

ছেলে যেখানেই খেলেন, বাবার আপ্রাণ চেষ্টা থাকে সেখানে ছুটে এসে মাঠে বসে খেলা দেখার। ব্যতিক্রম হয়নি চলমান ঢাকা টেস্টেও। হ্যাঁ বলছি বাংলাদেশ দলের অন্যতম সেরা ব্যাটার মুশফিকুর রহিমের বাবা মাহবুব হামিদের কথা।

মিরপুরে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টানা দ্বিতীয় শতক হাঁকাতে মুশফিক যখন ধৈর্যের পরীক্ষা নিচ্ছেন, ঠিকই দর্শকের আসনে ছিলেন বাবা মাহবুব হামিদ। ওইদিন ম্যাচ দেখার ফাঁকেই বিডিক্রিকটাইমকে এক সাক্ষাৎকারে মাহবুব হামিদ জানান, মুশফিক অবসর নেওয়ার আগপর্যন্ত তিন ফরম্যাটেই খেলে যেত চান, আর ফর্মে থাকা অবস্থায়ই বলতে চান বিদায়।

মাহবুব হামিদ বলেন, ‘ও যতদিন থাকবে ভালো খেলবে, ভালো খেলেই বিদায় নিবে। অফ ফর্ম যাবে বা খারাপ সময় এলে বিদায় নিবে- আমার মনে হয় তা হবে না। ও ভালো খেলতে খেলতেই বিদায় নিবে। ও চায়, আমরাও চাই, অবসরের আগ পর্যন্ত যেন ধারাবাহিকতা অটুট থাকে।’

টেস্টে ব্যাক টু ব্যাক সেঞ্চুরি হাঁকানো মুশফিক টি-টোয়েন্টিতেও ফর্মে ফিরবেন, আশাবাদ তার বাবার।তিনি বলেন, ‘টি-টোয়েন্টি নিয়েই গুঞ্জনটা হচ্ছে। হ্যাঁ ওর অফ ফর্ম টেস্টেও যাচ্ছিল, একমাত্র ওয়ানডে ছাড়া। কিন্তু টেস্টে তো ফর্মে ফিরেছে। টি-টোয়েন্টিতেও ফিরবে। ও যে কঠোর পরিশ্রম করে, আল্লাহ তো দেখেন। মালিক তো তিনিই।’

‘আমরাই বলেছি- ফর্মে থাকা অবস্থায় যদি তোমাকে বাদ দেয়, দিবে। নির্বাচক কমিটি আছে, অপারেশন্স কমিটি আছে। তারা তো ফর্মে থাকা ক্রিকেটারকেই নিবে। সে ভালো খেললে দলে থাকবে। আমরা আশা করি ও সবসময় ভালো খেলবে।’

সতীর্থদের সঙ্গ না পাওয়ায় ১৭৫ রানে অপরাজিত থেকে প্রথম ইনিংসের ইতি টানতে হয়েছে মুশফিককে। ২৫ রানের কমতিতে দুইশ না হলেও মাহবুব হামিদের তেমন আফসোস নেই।

এ ব্যাপারে মুশফিকের বাবা বলেন, ‘মুশফিকের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ একটা সেঞ্চুরি হয়েছে এটা। ওর আর লিটনের সেঞ্চুরি না হলে প্রথমেই হয়ত ব্যাকফুটে চলে যেতাম। আরেকটু সমর্থন পেলে ২০০ হওয়ার সুযোগ ছিল। একটা বড় ল্যান্ডমার্কে যেতে পারত। তারপরও যে রান হয়েছে, আলহামদুলিল্লাহ, আল্লাহর কাছে শোকরিয়া।’

পাঠকের মতামত:

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর



রে