ঢাকা, শনিবার, ২ জুলাই ২০২২, ১৭ আষাঢ় ১৪২৯

পাকা চুল কালো হবে ঘরোয়া উপায়ে

২০২২ জুন ১৩ ১১:৫২:০২
পাকা চুল কালো হবে ঘরোয়া উপায়ে

চুল নিয়ে কোনো না কোনো সমস্যায় আমরা প্রায়ই ভুগে থাকি। এক দিকে ধুলো-ময়লা, পানিতে আয়রনের আধিক্য, অন্য দিকে জেল, স্ট্রেটনার, নানা প্রকার রাসায়নিকের কারিগরিতে চুলের বেহাল দশা। এর ফলে চুল পড়া, খুশকির সমস্যা, পাকা চুল, রুক্ষ চুল ইত্যাদি নানা সমস্যা দেখা দেয়।

জানেন কি, এই সব সমস্যার সমাধান লুকিয়ে আছে মাত্র একটি পাতায়। হ্যাঁ, কারিপাতা দূর করে দিতে পারে চুলের সব সমস্যা। ভাবছেন কীভাবে? চলুন তবে জেনে নেয়া যাক চুলের যত্নের জন্য কেন এতটা উপকারী কারিপাতা-

কারিপাতার মধ্যে থাকা প্রোটিন ও বিটা-ক্যারোটিন চুল পড়া রুখতে সাহায্য করে। এই পাতা অ্যান্টি-অক্সিড্যান্টে ভরপুর, যা তালুর আর্দ্রতা বজায় রাখে, খুশকির সমস্যা দূর করতে সাহায্য করে।

হেয়ার টনিক

নারকেল তেলের মধ্যে কারি পাতা দিয়ে ফোটাতে থাকুন যতক্ষণ না পাতাগুলো ভালো করে পুড়ে যাচ্ছে। তারপর এই মিশ্রণ ভালো করে ছেঁকে নিয়ে চুলের গোড়ায় ভালো করে মালিশ করুন। এক ঘণ্টা রেখে শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দু’বার এই মিশ্রণ মাথায় লাগান। চুল তাড়াতাড়ি বাড়বে। চুলের অকালপক্বতার হাত থেকে রেহাই পেতেও দারুণ কাজে আসে এই দাওয়াই।

কারি পাতা। হেয়ার মাস্ক

কয়েকটি কারি পাতা বেটে একটি মিশ্রণ তৈরি করে নিন। তারপর সেই মিশ্রণ টক দইয়ের সঙ্গে মিশিয়ে মাথার তালুতে লাগিয়ে ২০ থেকে ২৫ মিনিট রাখুন। শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে এক দিন কারি পাতার মাস্ক লাগালে চুলের ঘনত্ব বাড়বে। হারানো জেল্লাও ফিরে পাবেন। দইয়ের পরিবর্তে এই হেয়ার প্যাকে পেঁয়াজের রসও দিতে পারেন। এতেও উপকার পাবেন।

কারিপাতার চা

নিয়মিত কারিপাতার চা খেলেও চুলের নানা সমস্যা থেকে নিস্তার পাওয়া যায়। জলে কয়েকটি কারিপাতা দিয়ে মিনিট পাঁচেক ফুটিয়ে তাতে লেবুর রস ও সামান্য মধু দিন। টানা এক সপ্তাহ এই চা খেয়ে দেখুন। এই চা হজম ক্ষমতা বাড়ায়। ফলে চুলের স্বাস্থ্য ভালো রাখবে, চুল পাকার হাত থেকেও রেহাই পেতে পারেন।

পাঠকের মতামত:

স্বাস্থ্য এর সর্বশেষ খবর

স্বাস্থ্য - এর সব খবর



রে