ঢাকা, রবিবার, ৭ আগস্ট ২০২২, ২২ শ্রাবণ ১৪২৯

সাকিবের চুক্তি নিয়ে তদন্তে বিসিবি

২০২২ আগস্ট ০৪ ২২:১৬:২১
সাকিবের চুক্তি নিয়ে তদন্তে বিসিবি

ক্রিকেটে থাকুন কিংবা না থাকুন, সাকিব আল হাসান বরাবরই আলোচনায় থাকেন। সর্বশেষ সাইপ্রাসভিত্তিক ম্যারিকিট হোল্ডিংসের মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান অনলাইন বেটিং সাইটের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান বেটউইনার নিউজ.কমের শুভেচ্ছা দূত হয়ে আবারও খবরের শিরোনামে সাকিব।

বেটউইনার নিউজ মূলত অনলাইন জুয়াভিত্তিক বেটউইনার.কমের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান। আর তাই যত আলোচনা-সমালোচনা কিংবা বিতর্ক। ক্রিকেটীয় কিংবা বিসিবির আইনে কোনো ক্রিকেটার বেটিং সাইটের সঙ্গে চুক্তি করতে পারেন না। ফলে সাকিবের এমন চুক্তিতে অবাকই বিসিবি।

এছাড়াও এই চুক্তির আগে সাকিব নিজ থেকে বিসিবির সঙ্গে আলোচনা করেনি বলেও জানিয়েছেন বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। আলোচনা করলে বোর্ড থেকে কোনোভাবেই অনুমতি পাওয়া যেত না বলে নিশ্চিত করেছেন বোর্ড প্রেসিডেন্ট।

এদিকে সাকিব এই চুক্তি নিয়ে ফেসবুকে পোস্ট দিয়েছে। যেখানে এই ক্রিকেটার লিখেছেন, ‘প্রিয় ভক্ত, বেটউইনার নিউজের সঙ্গে আমার অফিসিয়াল চুক্তির বিষয় আমি গর্ব সহকারে জানাতে চাই।

বেটউইনার নিউজ খেলার তথ্যের অন্যতম এক মাধ্যম। আপনারা যদি বর্তমানের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে চান এবং খেলার বিশ্লেষণ কিংবা হাইলাইটস পেতে চান তবে বেটউইনার নিউজ আপনার জন্য। ইন্টারনেটে বেটউইনার নিউজ খুঁজে নেন।’

তবে কেবল এই পোস্ট নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত না নিয়ে তদন্তে নামতে চায় বিসিবি। এরপরই প্রয়োজনীয় সিদ্ধান্ত নেবে সাকিবের পক্ষে বা বিপক্ষে। আজ (৪ আগস্ট) বোর্ড সভা শেষে সাকিবের সঙ্গে বেটউইনার নিউজের চুক্তি নিয়ে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বলেন,

‘প্রথম কথা হচ্ছে, আমাদের অনুমতি নেওয়ার প্রশ্নই ওঠে না। কারণ আমরা তো অনুমতি দিবোই না। যদি বেটিং সক্রান্ত হয়ে থাকলে, অনুমতি তো দিবোই না। এটার মানে হচ্ছে আমাদের কাছে অনুমতি চায়নি।

দ্বিতীয় কথা হচ্ছে, আদৌ চুক্তিটা করেছে কিনা এটা তো আমাদের জানতে হবে। আজ এটা নিয়ে কথা উঠেছিল। আমরা বলেছি এটা তো কোনোভাবে সম্ভব না, এটা কিভাবে হয়। আমি বলেছি, তাড়াতাড়ি এটা বের করো। আসলে এটা হয়েছে কিনা। হইলে তার কাছে জানতে চাও, নোটিশ সার্ভ করো।

আজকের মিটিংয়ে এই কথাটা উঠেছিল। নাও হতে পারে, এরকম একটা কথা এসেছে বোর্ডে। নাও হতে পারে, তাহলে তো একটা সিদ্ধান্ত আমি নিতে পারছি না। তার পরও বলে দিয়েছি দ্রুত জানতে। তবে বোর্ডের অবস্থান খুবই পরিষ্কার। এটা কোনোভাবেই সম্ভব নয়।

এটা তো শুধু ক্রিকেট বোর্ড নয়, বাংলাদেশের আইনেও অনুমতি নেই। আমাদের দেশের আইন এটা পারমিট করে না। এটা তো অবশ্যই মারাত্মক ইস্যু। এ জন্যই একেবারে একটা ফেসবুক বা পোস্টিংয়ের ওপর নির্ভর না করে আমাদের তদন্ত করতে হবে। খুঁজে দেখতে হবে আসলে কী হয়েছে। এটা সত্যি হয়ে থাকলে বোর্ডের যা যা করার, অবশ্যই বোর্ড করবে।’

পাঠকের মতামত:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর



রে