ঢাকা, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০

স্পট ফিক্সিংয়ে জড়িত ক্রিকেটার এখন পিসিবির গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি

খেলা ডেস্ক . ২৪আপডেট নিউজ
২০২৩ ডিসেম্বর ০২ ১৪:১৭:৩৪
স্পট ফিক্সিংয়ে জড়িত ক্রিকেটার এখন পিসিবির গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি

বিশ্বকাপে হারের পর একের পর এক বড় পদক্ষেপ নিল পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। ইনজামাম-উল-হককে সরিয়ে বাবর আজমের পদত্যাগের পর বোর্ডে অনেক পরিবর্তন এসেছে। এখন পাকিস্তান দলকে সংগঠিত করছে পিসিবি। তার একটি পদক্ষেপ ছিল সিনিয়র টিম নির্বাচক হিসেবে সালমান বাটকে সুযোগ দেওয়া। নির্বাচক কমিটিতে জায়গা পেয়েছেন পাকিস্তানের এই সাবেক অধিনায়ক।

৩৯ বছর বয়সী সালমান বাট পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের তৎকালীন সিনিয়র নির্বাচক ছিলেন। ৩৯ বছর বয়সী স্টার্টার স্পট ফিক্সিংয়ে জড়িত ছিলেন। ২০১৯ সালে তাকে পাঁচ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছিল। সেই দুর্নীতিতে জড়িত খেলোয়াড়কে সুযোগ দিয়েছে পাকিস্তান। নির্বাচক কমিটিতে তার সঙ্গে রয়েছেন ওয়াহাব রিয়াজ, কামরান আকমল ও রাও ইফতিখার আঞ্জুম।

তবে নির্বাচক হিসেবে সুযোগ পেলেও ক্রিকেটকে পুরোপুরি বিদায় জানাননি তিনি। বর্তমানে তিনি জাতীয় টি-টোয়েন্টি চ্যাম্পিয়নশিপে খেলছেন। মন্তব্যও করেন তিনি। "সালমন বাটের প্রথম কাজ হবে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে আসন্ন টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য দলকে প্রস্তুত করা," পিসিএইচবি বিবৃতিতে বলা হয়েছে। এই সিরিজটি ১২ জানুয়ারী ২০২৪ থেকে শুরু হবে। তার আগে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে একটি টেস্ট সিরিজ খেলা হবে।

তবে তার নিয়োগ শুধু দল গঠনের জন্য নয়। পাকিস্তান ক্রিকেটের উন্নয়নে তিনি স্কিল ক্যাম্পের আয়োজন করবেন। দলের নির্বাচক কমিটিতে স্পট ফিক্সিংয়ে জড়িত একজন খেলোয়াড়কে অন্তর্ভুক্ত করার নিন্দা জানিয়েছে পিসিবি। পাকিস্তান ক্রিকেটে কেন অন্য খেলোয়াড়দের সুযোগ দেওয়া হচ্ছে না তা নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলেছেন।

সালমান বাট, মোহাম্মদ আমির ও মোহাম্মদ আসিফকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল নিষিদ্ধ করেছে। ইংল্যান্ডে তার বিরুদ্ধে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের অভিযোগ ওঠে। তারাও ধরা পড়ে। তাদের কারাগারে রাখা হয়েছিল। ফলে শুধু দেশেই নয়, বিদেশেও তিনি 'প্রতিপত্তি' অর্জন করেছেন। সালমান বাটের নেতৃত্বে পাকিস্তান দল মাত্র দুটি টেস্ট ম্যাচ জিতেছে। কিন্তু অধিনায়ক হিসেবে নিজের ব্যর্থতা মেনে নেননি বাট, সব সময়ই অভিযোগ করেছেন সঠিক পরিকাঠামো না পাওয়ার।

ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ হওয়ার পর জাতীয় দলে খেলার সুযোগ পান। তাকে দলে আনার চেষ্টা করেছিলেন সাবেক কোচ ওয়াকার ইউনিস। কিন্তু সে সময় তাকে দলে ফিরতে দেননি পাকিস্তান অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদি। আপনি কি রাজ্য, দেশ, বিশ্বের, বিনোদন, খেলাধুলার সব খবর পেতে প্রথম হতে চান? হোয়াটসঅ্যাপে এই বারটি অনুসরণ করুন।

আপনার জন্য বাছাই করা কিছু নিউজ



রে