ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২০, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

বিমান চলাচল শুরু, প্রবাসীদের প্রবেশ নিয়ে সরকারের জরুরী বার্তা

২০২০ জুন ১০ ২২:৫৭:১৫
বিমান চলাচল শুরু, প্রবাসীদের প্রবেশ নিয়ে সরকারের জরুরী বার্তা

করোনা বিস্তার রোধ করতে মালয়েশিয়াতে বিদেশিদের প্রবেশ এখনো বন্ধ রয়েছে। তবে মালয়েশিয়ান এবং বিশেষ ভিসাধারী অভিবাসীগণদের ক্ষেত্রে এই আইন প্রযোজ্য নহে। তারা দেশটিতে প্রবেশ করতে পারবে। অভিবাসী শ্রমিক, ট্যুরিস্ট, ছাত্র ইত্যাদি ভিসাধারীদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা এখনো বহাল রয়েছে।

মঙ্গলবার ৯ই জুন) মালয়েশিয়ার সিনিয়র মন্ত্রী (প্রতিরক্ষা) দাতুশ্রী ইসমাইল সাবরি ইয়াকুব ব্যাখ্যা করেছেন যে, তবে কূটনীতিক, ডিপেন্ডেন্ট এবং মালয়েশিয়া মাই সেকেন্ড হোম ভিসাধারীদের প্রবেশে কোন বাধা নেই। একই সঙ্গে তিনি বলেছিলেন, তাদের 14 দিনের জন্য কোয়ারেনটাইনে থাকতে হবে এবং দেশে প্রবেশের জন্য অবশ্যই মালয়েশিয়ার হাইকমিশনের ইমিগ্রেশন বিভাগে আবেদন করতে হবে।

আমাদের দেশের সীমান্ত গুলো শুধুমাত্র মালয়েশিয়ান নাগরিকদের জন্য উন্মুক্ত এবং উল্লেখিত অভিবাসীদের জন্য প্রবেশ নীতি বহাল রয়েছে। তবে স্থানীয় মালয়েশিয়ান নাগরিকদের জন্য নিজেদের বাসায় ১৪ দিন কোয়ারেনটাইন নিশ্চিত করতে হবে এবং অনুমতি প্রাপ্ত অভিবাসীদের ক্ষেত্রে সরকার কর্তৃক নির্ধারিত কোয়ারেনটাইন সেন্টারে থাকতে হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

সরকারের নতুন ঘোষণা অনুযায়ী রিকভারি মুভমেন্ট কন্ট্রোল অর্ডার বা RMCO এর অধীনে ৩১শে আগস্ট পর্যন্ত মালয়েশিয়া আন্তর্জাতিক বানিজ্যিক বিমান চলাচল বন্ধ থাকবে। তবে মালয়েশিয়ার সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে এর আগেই বিমান চলাচল স্বাভাবিক হতে পারে। তবে মালয়েশিয়াতে বিদেশি শ্রমিকেরা ঠিক কবে ফিরতে পারবে সে বিষয়ে সুনির্দিষ্ট কোন তথ্য এখনো প্রকাশ করেনি মালয়েশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইসমাইল সাবরি।

মালয়েশিয়া থেকে ছুটিতে বা বেড়াতে যাওয়া বাংলাদেশী প্রবাসীদের মাঝে বর্তমানে চরম হতাশাভাব লক্ষয করা গেছে। করোনার এই পরিস্থিতি সৃষ্টি হওয়ার আগে দেশে আসা প্রবাসীরা পড়ে গেছে বেকায়দায়। অনিশ্চিত কর্মজীবন যেন হাতছানি দিচ্ছে। এদিকে বাংলাদেশ থেকে জুনের ৩ সপ্তাহ হতে আন্তর্জাতিক বিমান চলাচল শুরু হওয়ার খবর প্রকাশ করা হয়েছে বিভিন্ন গণমাধ্যম গুলোতে। ধারণা করা হচ্ছে জুনের ১৬ তারিখ থেকে বিমান চলাচল ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হতে থাকবে। তবে মালয়েশিয়া সরকারের ঘোষণা অনুযায়ী প্রবাসীরা মালয়েশিয়াতে প্রবেশের নিষেধাজ্ঞা এখনো বহালই রয়েছে।

কি আছে ছুটিতে আসা মালয়েশিয়া প্রবাসীদের ভাগ্যে? সেই প্রশ্নের উত্তর এখনো অজানা, অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে প্রবাসীদের মালয়েশিয়ায় ফেরা। মালয়েশিয়া ফিরতে ৩১শে আগস্টের পর সময় লেগে গেলে ভিসা জটিলতায় ও পড়ার সম্ভাবনা থেকে যাচ্ছে অনেকের ক্ষেত্রে। ৩১শে আগস্টের আগে বা পরে প্রবেশের অনুমতি দেয়া হলেও কারো ২-৩ মাস, কারো ৩-৪ মাস আবার কারো ৫-৬ মাস ভিসার মেয়াদ পার হয়ে যাবে অনেকের, এক্ষেত্রে প্রবেশের বিষয়টি মালয়েশিয়ার ইমিগ্রেশন বিভাগের নিয়ম অনুযায়ী এখনো অস্পষ্ট। ইমিগ্রেশন থেকে যদিও প্রবেশের বিষয়ে বলা হয়ে ভিসা শেষ হয়ে গেলেও প্রবেশ করা যাবে। তবে অনেক খুটিনাটি বিষয় এখনো অজানা রয়ে গেছে।

ইসমাইল সাবরি আরও উল্লেখ করেন, বিশেষ কোন ক্ষেত্রে জরুরি প্রয়োজন ব্যতীত মালয়েশিয়ান নাগরিকদের বিদেশ ভ্রমনে কোন অনুমতি নেই। আমরা আমাদের নাগরিকদের জন্য বিদেশে যাওয়ার দরজা বন্ধ করতে চাই। তবে আমাদের কাছে আবেদন রয়েছে যেমন শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা বা অন্যান্য নির্দিষ্ট ক্ষেত্রের জন্য বিদেশে তাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে ফিরে যেতে চেয়েছে। সুতরাং, আমরা এই জাতীয় বিশেষ ক্ষেত্রে বিদেশে যাওয়ার অনুমতি সম্মত হলেও মালয়েশিয়ার ইমিগ্রেশন বিভাগের অনুমোদন প্রয়োজন রয়েছে।

পাঠকের মতামত:

প্রবাসী এর সর্বশেষ খবর

প্রবাসী - এর সব খবর



রে