ঢাকা, বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১ বৈশাখ ১৪২৮

শেষে ওভারে অ্যালেনর ৩ ছক্কায় ২৬৫ রানের অবিশ্বাস্য টি-২০ ম্যাচ দেখলো ক্রিকেট বিশ্ব

২০২১ মার্চ ০৮ ১১:৩৩:৫৪
শেষে ওভারে অ্যালেনর ৩ ছক্কায় ২৬৫ রানের অবিশ্বাস্য টি-২০ ম্যাচ দেখলো ক্রিকেট বিশ্ব

প্রথম ম্যাচে ক্যারিবীয় অধিনায়ক কাইরন পোলার্ডের কাছে তুলোধুনো হয়েছিলেন লংকান স্পিনার আকিলা ধনঞ্জয়া। তার এক ওভারে ছয় বলে ছয় ছক্কা হাঁকান পোলার্ড।

পরের ম্যাচে দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়ায় সফরকারী শ্রীলংকা। সেই ধনঞ্জয়ার স্পিনঘূর্ণিতেই পরাস্ত গেইল-পোলার্ডরা। ৪৩ রানের বিশাল জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে শ্রীলংকা।

এই জয়ে বড় অবদান ফাবিয়ান অ্যালেন। শেষ দিকে তার তিন ছক্কা ওইন্ডিজকে ম্যাচে ফিরিয়ে আনে।

১-১ সমতায় অ্যান্টিগার কুলিজ ক্রিকেট গ্রাউন্ডে সোমবার ভোরে ফের ওয়েস্ট ইন্ডিজের মুখোমুখি হয় ম্যাথিউসের দল।

তবে এবার পোলার্ডদের সঙ্গে পেরে ওঠেনি সফরকারীরা।

ফ্যাবিয়ান অ্যালেনের অলরাউন্ড নৈপুণ্যের সুবাদে জয় পেয়েছে স্বাগতিকরা। এ জয়ের সুবাদে লঙ্কানদের বিপক্ষে ২-১ ব্যবধানে সিরিজ জিতে নিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের শেষ এবং সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করে শ্রীলঙ্কা। ৯ বলে ৯ রান করে অ্যালেনের বলে কট এন্ড বোল্ড হন ওপেনার দানুশকা গুনাথিলাকা।

তার পরের ওভারেই কেভিন সিনক্লেয়ারের বলে জেসন হোল্ডারের হাতে ক্যাচ দেন নিরোশান ডিকওয়েলা। দুই ওভারে দুই উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে শ্রীলঙ্কা।

পাওয়ারপ্লের শেষ ওভারে জেসন হোল্ডারের শর্ট বলে বোকার মতো ক্যাচ তুলে দিয়ে সাজঘরে ফেরেন পাথুম নিসাঙ্কা। ১৩ বলে ৫ রান তুলেই সমাপ্তি ঘটে তার ইনিংসের।

এমন বিপর্যয়ের মধ্যে অধিনায়ক অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস থিতু হওয়ার চেষ্টা করেন। কিন্তু ব্যক্তিগত ১১ রানের মাথায় তিনিও উইকেট বিলিয়ে দিয়ে আসেন।

ওবেদ ম্যাকয়ের বল ম্যাথিউসের ব্যাটের কানায় লেগে চলে যায় উইকেটরক্ষক নিকোলাস পুরানের হাতে।

এমন পরিস্থিতিতে হাল ধরেন দীনেশ চান্দিমাল ও আসেন বান্দারা।

খেলাকে শেষ অবধি টেনে নিয়ে যায় এ জুটি। পঞ্চম উইকেটে চান্দিমাল-বান্দারার অবিচ্ছিন্ন জুটি স্কোরবোর্ডে জমা করেন ৮৫ রান।

চান্দিমাল ৪৬ বলে ৫৪ রানে ও বান্দারা ৩৫ বলে ৪৪ রান করে অপরাজিত থাকেন।

নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে দলের সংগ্রহ হয় ৪ উইকেটে ১৩১ রান।

ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে এ লক্ষ্য সহজ। কিন্তু ক্যারিবীয় ইনিংসে সেরকম মনে হয়নি। বলতে গেলে ১৩২ রানের লক্ষ্য পেরুতে খুব কষ্ট করতে হয়েছে ওয়েষ্ট ইন্ডিজকে।

দুই ওপেনার এভিন লুইস এবং লেন্ডল সিমন্স দারুণ সূচনা এনে দিলেও দ্রুত সময়ে ৩ উইকেট পড়ে চাপে পড়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

৩৭ রানের উদ্বোধনী জুটি ভাঙেন স্পিনার হাসারাঙা ডি সিলভা। ২১ রান করে ডি সিলভার বলে এলবিডব্লিউ হন লুইস।

নিজের পরের ওভারে এসে সিমন্সের উইকেট (২৬ রান) তুলে নেন ডি সিলভা। এরপর অধিনায়ক কিরন পোলার্ড মাঠে নেমেই আউট হয়ে যান।

শেষ ম্যাচেও ফ্লপ 'ইউনিভার্স বস' ক্রিস গেইল। ২০ বলে ১৩ রান করে লক্ষন সান্দাকানের বলে আউট হন তিনি। দুই বছর পর দলে ফিরে নিজের নামের সুবিচার করতে পারেননি এই ব্যাটিং জায়ান্ট।

গেইল ব্যর্থ হলেও নিকোলাস পুরান ১৮ বলে ২৩ রানের ইনিংস খেলে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ম্যাচে টিকিয়ে রাখেন। চামিরার দারুণ এক ডেলিভারিতে পুরান বোল্ড হন। এরপর রোভম্যান পাওয়েল ৭ রানে ফেরেন। পোলার্ডের মতো ডোয়াইন ব্র্যাভোও শূন্য রানে ফেরেন। দুজনকেই দ্রুত সময়ে আউট করেন সান্দাকান।

শেষ ১৮ বলে জয় পেতে ২৭ রানের দরকার ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের। এই ২৭ রান করতে ১৯ তম ওভার পর্যন্ত খেলতে হয় উইন্ডিজকে।

১৯তম ওভারে গিয়ে খলনায়কে পরিণত হন আকিলা ধনঞ্জয়া আর নায়কে ফ্যাবিয়ান অ্যালেন। ধনঞ্জয়ার ওই ওভারে ৩ ছক্কা হাঁকিয়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন অ্যালেন। ৩ উইকেটে জয় পায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

ম্যাচসেরার পুরস্কার ওঠে ফ্যাবিয়ান অ্যালেনেরই হাতে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: শ্রীলঙ্কা ১৩১/৪, ২০ ওভারচান্দিমাল ৫৪*, বান্দারা ৪৪*, ম্যাথিউস ১১অ্যালেন ১/১৩, সিনক্লেয়ার ১/১৯

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১৩৪/৭, ১৯ ওভারসিমন্স ২৬, পুরান ২৩, অ্যালেন ২১*সান্দাকান ৩/২৯, ডি সিলভা ২/১৩

পাঠকের মতামত:

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর



রে