ঢাকা, সোমবার, ১৭ মে ২০২১, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

অল্পের জন্য ইতিহাস গড়া হলোনা মুস্তাফিজের

২০২১ এপ্রিল ১৩ ০০:৩১:১৫
অল্পের জন্য ইতিহাস গড়া হলোনা মুস্তাফিজের

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ আইপিএলের এবারের আসরে প্রথম সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছেন রাজস্থান অধিনায়ক সঞ্জু স্যামসন। একই সঙ্গে অধিনায়ক হিসেবে অভিষেক ম্যাচেই সেঞ্চুরির রেকর্ড করলেন তিনি। কিন্তু তার এমন সাফল্যের দিনেও দল হেরেছে।

এই ম্যাচে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে চার ছক্কার তান্ডবে ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ২২১ রান করে পাঞ্জাব কিংস। দলের ওপেনার লুকেশ রাহুল সর্বোচ্চ ৫০ বলে ৯১ রান করেন।এছাড়া ক্রি গেইল ২৮ বলে ৪০ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলেন। আরেক তারকা দ্বিপক হুদা ছিল বিধ্বংসী মেজাজে। ২৮ বলে তিনি ৬৪ রানের টর্নেডো ইনিংস খেলেন।

পাঞ্জাব ব্যাটসম্যনাদের এমন তান্ডবের কল্যানে ২০ ওভার শেষে তাদের স্কোর দাড়ায় ২২১ রান।কিন্তু এত রান করেও ফিল্ডিংয়ের সময় পুরো ম্যাচেই স্বস্তিতে ছিল না পাঞ্জাবরা। রাজস্থানের এক সঞ্জু স্যামসনের ব্যাটিং তান্ডবেই সব এলোমেলো হয়ে যায় তাদের।

বিশাল রানের জবাব দিতে নেমে ওপেনার স্টোকস ৩ বলে ০ রানেই আউট হন। আরেক ওপেনার বোহরা করেন ১২ রান। চারে নামা বাটলার আউট হন ১৩ বলে ২৫ রান করে। এরপর ১৫ বলে ২৩ রান করে আউট হন শিভাম ধুবে। রায়ান পারাগ করেন ১১ বলে ২৫ রান।

এরা প্রত্যেকেই এসে জুটি বেধেছিল স্যামসনের সঙ্গে। এক প্রান্তে এসব তারকারা ঝড় তুলে বিদায় নিলেও অন্য প্রান্তে ঝড়ো ব্যাটিং অব্যাহত রাখেন স্যামসন। তার অবিশ্বাস্য ঝড়ো ব্যাটিংয়েই জয়ের বন্দরের কাছে পৌছায় রাজস্থান। কিন্তু শেষ পর্যন্ত হেরে যায় ৪ রানের ব্যবধানে।

শেষ ওভারে জয়ের জন্য ১৩ রান প্রয়োজন ছিল রাজস্থানের। প্রথম বলে কোন রান নিতে পারেনি স্যামসন। দ্বিতীয় বলে নেন এক রান। তৃতীয় বলে ১ রান নেন ক্রিস মরিস। চতুর্থ বলেই বিশাল ছক্কা মারেন স্যামসন।

সমীকরণ তখন সহজ হয়ে যায়। ২ বলে প্রয়োজন হয় ৫ রান। ৫ম বলে এক রান নেয়ার সুযোগ থাকলেও সেটা নেননি স্যামসন। হয়তো ভেবেছিলেন বাউন্ডারি হাকিয়ে জয় এনে দিতে পারবেন তিনি। কিন্তু শেষ বলে আউট হয়ে যান। সেই সঙ্গে ব্যর্থ হয় হার না মানা এক লড়াকু ইনিংস।

পাঠকের মতামত:

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর



রে