ঢাকা, সোমবার, ১৭ মে ২০২১, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

তামিমকে নিয়ে জল্পনা কল্পনা

২০২১ এপ্রিল ২১ ২০:৩৮:১৬
তামিমকে নিয়ে জল্পনা কল্পনা

‘আমি জিতলে জিতে যায় মা’- তামিম ইকবালেরই করা বিজ্ঞাপনচিত্রের একটি ডায়ালগ। যেটা আবার খুব প্রচলিত। বিজ্ঞাপনচিত্রে বলা এই কথাটা কী তবে তামিম বাংলাদেশ ক্রিকেট দলে নিজের ক্ষেত্রেও সেট করে নিয়েছেন? ‘তামিম ভালো খেললে জিতে যায় বাংলাদেশ!’

তামিম ভালো খেলার ফলে বাংলাদেশ জিতেছে, এমন অনেক ম্যাচ আছে। টেস্ট, ওয়ানডে কিংবা টি-টোয়েন্টি - সব ফরম্যাটেই আছে এমন উদাহরণ। তবে তিনি ভালো খেললে বাংলাদেশ জিততে না পারুক, অন্তত পরের ব্যাটসম্যানদের জন্য যে কাজ সহজ হয়ে যায়, এটা তো স্বতসিদ্ধ কথা।

আজ শ্রীলঙ্কার পাল্লেকেলেতে এটাই আবার প্রমাণ হলো। তামিম ভালো খেলেছেন। সুতরাং, সাহস সঞ্চার হয়েছে পরের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে। নাজমুল হোসেন শান্ত সেঞ্চুরি করতে পেরেছেন। অধিনায়ক মুমিনুল হক হাফ সেঞ্চুরি করে এখনও উইকেটে আছেন। তামিম ভালো খেলতে পেরেছেন বলেই পরের ব্যাটসম্যানরা পুরোপুরি ভারমুক্ত, চাপমুক্ত।

এক শ্রেণির সমালোচকরা আজকাল তার ব্যাটিংয়ের ধরণ ও স্ট্রাইকরেট নিয়ে তীর্যক কথাবার্তা বলেন। অবশ্য সেটা একদিনের সীমিত ওভারের ফরম্যাটে। তারপরও তামিম যখন হঠাৎ করে একটা শ্রেণীর চক্ষুশুল হয়ে উঠেছেন। সুযোগ পেলেই একটা অংশ তামিমের সমালোচনায় মুখর হয়ে ওঠেন।

তবে আসল সত্য হলো, তামিম বরাবরের মত এখনো দলের অন্যতম নির্ভরতা এবং সবচেয়ে বড় কথা হলো, তামিম যেদিন ভাল খেলেন, নিজের ছন্দ ফিরে পান এবং রান করেন, সেদিন দলও ভাল খেলে। এ নিয়ে কারো দ্বিমত নেই। এটা প্রমানিত।

দেশের মাটিতে মানে রাজধানী ঢাকার শেরে বাংলায় ইংল্যন্ড-অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্ট জয়, এই শ্রীলঙ্কার মাটিতে লঙ্কানদের বিপক্ষে শততম টেস্ট জয়ের অন্যতম রূপকার, নায়ক ও স্থপতি হচ্ছেন তামিম। তিনি একদিকে স্বচ্ছন্দে সাবলীল ব্যাটিং করলে দলের ব্যাটিং ভাল হয়। বাকিরা স্বচ্ছন্দে খেলার অনুপ্রেরণা পায় এবং টিম বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ের চেহারাটাই যায় পাল্টে।

যে ব্যাটিংকে আগের ম্যাচে হতচ্ছিরি, ছন্নছাড়া আর বর্ণহীন মনে হয়, তামিমের ব্যাট কথা বললে সেই ম্যাচের ব্যাটিংয়ের ধরণটাই যায় পাল্টে। পুরো ব্যাটিংটাই বর্ণিল হয়ে ওঠে। আজ ২১ এপ্রিল ক্যান্ডির পাল্লেকেল্লে স্টেডিয়ামেও তাই হয়েছে।

নাজমুল হোসেন শান্ত দারুণ শতরান করেছেন। অধিনায়ক মুমিনুল হকও ৬৪ রানে অপরাজিত। দিন শেষে বাংলাদেশের স্কোর ৩০০ পেরিয়ে গেছে (২ উইকেটে ৩০২); কিন্তু তা ছাপিয়ে তামিমকে নিয়েই যত কথা। শান্ত সেঞ্চুরি করলেও তামিমই দিন সেরা পারফরমার।

তামিম ভাল খেললে দলের ব্যাটিংয়ের চেহারা পাল্টে যায়। পরের ব্যাটসম্যানরা সাহস পান। বাড়তি উদ্যম কাজ করে। সাহসটাও বেড়ে যায়। সব মিলিয়ে টিম বাংলাদেশের ব্যাটিং ভাল হয় তামিম ভাল খেললে। কেন এমন হয়?

এটা কী আসলে তামিম নির্ভরতা? বিষয়টা আসলে কী? সত্যিই ক তামিম ভাল খেলে রান করলে পুরো দল চাঙ্গা হয়ে ওঠে? ব্যাটিংয়ের ধরণ যায় বদলে? নাকি এটা একটা ‘মিথ’।

বিষয়টি নিয়ে আছে নানা জল্পনা-কল্পনা। আজ জাগো নিউজের সাথে আলাপে জাতীয় দলের বর্তমান নির্বাচক, সাবেক অধিনায়ক ও জাতীয় দলের তামিমের প্রথম ক্যাপ্টেন হাবিবুল বাশার সুমন এ নিয়ে খোলামেলা কথা বলেছেন।

তিনিও বুঝিয়ে দিয়েছেন, হ্যাঁ সত্য, তামিম ভাল খেলে রান করলে দলের ব্যাটিং ভাল হয়। বাকিরা ভাল খেলতে শুরু করে। আবার তামিম শুরুতে কম রানে আউট হয়ে সাজ ঘরে ফিরলে ব্যাটিং অর্ডারে একটা কাঁপন তৈরি হয়। পরের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে একটা অস্বস্তি তৈরি হয়।

এসম্পর্কে হাবিবুল বাশার সুমন বলেন, ‘তামিম ভাল খেললে দল ভাল খেলে। তামিম ভাল শুরু করে দিতে পারলে পরের ব্যাটসম্যানরা সাহস পায়। উদ্যমী হয়। ড্রেসিং রুম চাঙ্গা হয়ে ওঠে। তামিম অল্প সময়ে আউট হলে কি নেগেটিভ প্রভাব পড়ে আমি ঠিক জানি না। বাট এটা হওয়া উচিৎ না। আমার মনে হয় আমরা ওসব দিন পিছনে ফেলে এসেছি।

‘এটা আমি বরং অন্যভাবে বলি। শোনেন, তামিম ভাল খেললে একটা অন্যরকম অ্যাডভান্টেজ থাকে। সেটা বাইরে থেকে কতটা বোঝা যায় জানি না। তবে লক্ষ্য করলে দেখবেন, তামিমতো সব সময় ডমিনেট করে। তামিম ভাল খেলা মানে, তার ব্যাট কথা বলার অর্থ প্রতিপক্ষ বোলারদের চাপে থাকা। কারণ তামিম রান করে, বড় ইনিংস খেলে প্রতিপক্ষ বোলিংয়ের ওপর কর্তৃত্ব ফলিয়ে। তাদের ডোমিনেট করে। সেটাই দলের জন্য অ্যাডভান্টেজ হিসেবে কাজ করে। তখন বাকিরা স্বস্তিতে খেলতে পারে। তাদের ওপর চাপ কমে যায়।’

‘আজ যেমন চাপ কমে গিয়েছিল শান্তর। সাইফ শুরুতে আউট হবার পরও তামিম খেলছে নিজের মত করে। লঙ্কান বোলারদের ডোমিনেট করে। তাদের এতটুকু প্রভাব খাটাতে দেয়নি। উল্টো তামিমই ছড়ি ঘুরিয়েছে। তাই শান্তর ওপর থেকে চাপ কমে গেছে। শান্ত ফ্রি হয়ে খেলতে পেরেছে। আসলে তামিম যখন রান করে তখন বাকিদের খেলাটা সহজ হয়ে যায়। তামিমের ভাল খেলাটা সব সময়ই বাকিদের ভাল খেলা সহজ করে দেয়। তবে আমার কথা হলো তামিম প্রতিদিন ভাল খেলবে না। তামিম ভাল না খেললেই বাংলাদেশ টিম হতাশ হয়ে গেছে। টিমের মরাল কমে যাবে। এটা আমি বিশ্বাস করতে চাই না। এটা হওয়াও উচিৎ না। আমার কাম্যও না।’

পাঠকের মতামত:

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর



রে