ঢাকা, রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

আজ ২৭/১০/২১ তারিখ, দেখেনিন বাংলাদেশে ২২ ক্যারেট সোনা ও ২১ ক্যারেট রুপার দাম

২০২১ অক্টোবর ২৭ ১৮:৫২:৪৫
আজ ২৭/১০/২১ তারিখ, দেখেনিন বাংলাদেশে ২২ ক্যারেট সোনা ও ২১ ক্যারেট রুপার দাম

সোনা মানুষের অন্যতম মূল্যবান সম্পদ। প্রাচীন যুগ থেকে স্বর্ণের প্রচলন চলে আসছে। তবে দিন দিন স্বর্ণের দাম বৃদ্ধি পায়। বর্তমানে সোনার দাম আকাশচুম্বী। তবুও মানুষ সোনা কেনার জন্য ব্যাকুল হয়ে ওঠে। কারণ স্বর্ণ শুধু নারীর সাজসজ্জা বা ইচ্ছাকে পূর্ণতা দেয় না স্বর্ণ অসময়ের সঙ্গী হিসেবে পাশে দাঁড়ায়। অর্থ সঞ্চয় অন্যতম উপায় হচ্ছে স্বর্ণ অলংকার কিনে রাখা।

তবে এই স্বর্ণের দাম শুনে মধ্যবিত্ত পরিবারের মানুষগুলো আঁতকে উঠে। কারণ তাদের সঞ্চয় এর অন্যতম উপাদানটিও আস্তে আস্তে বন্ধ হয়ে যাবার মত হয়ে দাঁড়াচ্ছে। কারণ দিনদিন স্বর্ণের দাম বেড়েই চলছে। সাধারণ মানুষ তো স্বর্ণ কেনার কথা কল্পনাও করতে পারে না। করোনাকালীন সময়ও সোনার দাম প্রতি ভরি অধিক মাত্রায় বৃদ্ধি পাচ্ছে। চলুন জেনে নেই সব ধরনের সোনার আরও বিস্তারিত কিছু তথ্য সম্পর্কে।

আমরা প্রতিদিনই বিভিন্ন মাধ্যম থেকে সোনার বর্তমান দাম জানতে চাই। কারণ স্বর্ণেরদাম কমলে আমরা সুযোগ বুঝে সোনা কিনে থাকি। আজকের সোনার বাজার মূল্য? বা আজকের সোনার দাম কত? জানার জন্য উদ্বিগ্ন হয়ে যাই।

আমরা শুধু আজকের সোনার বাজার মূল্য বা আজকের গোল্ড রেট এর কথা জানাই না তার পাশাপাশি রুপোর দাম কত সেটাও জানিয়ে থাকি। কারন আজকের সোনার দাম এর সাথে সাথে আজকের রূপার দাম উঠানামা করতে থাকে। তাই আমরা প্রতিদিনই আজকের সোনা রুপোর দাম সম্পর্কে জেনে নেই। স্বর্ণের দাম জানার সাথে সাথে সোনার পরিমাপ সম্পর্কে জেনে নেই।

গত দুই সপ্তাহের ব্যবধানে বাংলাদেশের সোনার বাজারে সোনার দাম আরো বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রতি ভরি সোনার দাম বেড়েছে প্রায় ২ হাজার ১৪ টাকা। বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি (বাজুস) থেকে জানানো হয়েছে আবারও স্বর্ণের দাম বাড়ানোর কথা। স্বর্ণের দাম বাড়ানোর সাথে সাথে আজকে রুপার দাম বৃদ্ধি পাচ্ছে।

অন্যদিকে জুয়েলার্স সমিতি থেকে জানানো হয়েছে যে, অলংকারের দাম বাড়ানোর জন্য মজুরিও বৃদ্ধি করেছেন। আরও জুয়েলারি সমিতি থেকে জানানো হয়েছে যে, বিশ্বের অন্যান্য দেশের জুয়েলারি খাতের উপর ভ্যাট এবং বাংলাদেশের গ্রাহকদের ওপর দেশের রাজস্ব আয় বৃদ্ধি পাবে।

২২ ক্যারেট সোনার দাম

আমরা যখন সোনা কেনার সময় বা স্বর্ণের দাম জানার সময় তখন সোনার ক্যারেট অনুসারে স্বর্ণের দাম জেনে থাকি। মূলত এই সোনার ক্যারেট ওপর নির্ভর করে স্বর্ণের দাম নির্ধারণ করা হয়। সোনা অনেক ধরনের ক্যারেটে পাওয়া যায়। তার মধ্যে অন্যতম .২৪ ক্যারেট, ২২ ক্যারেট, ২১ ক্যারেট এবং ১৮ ক্যারেট অন্যতম। তবে বাঙালিরা বেশি চিনে থাকি ভরি হিসেবে। তবে ক্যারেট আর ভরি এক নয়।

বাজারের সবচেয়ে বেশি মূল্যবান হচ্ছে ২৪ ক্যারেট যার মধ্যে কোন খাদ থাকেনা। আজকে আপনাদের মাঝে কথা বলব ২২ ক্যারেট নিয়ে। ২২ ক্যারেট সোনা বেশি জনপ্রিয় এবং বেশি বিক্রয় হয়। ২২ ক্যারেট সোনা সবচেয়ে ভালো। এবং এর পিউরিটি ৯১.৬০ %।

চলুন জেনে নিই তাহলে ২২ ক্যারেট সোনার দাম কত? যদিও স্বর্ণের দাম প্রতি সপ্তাহে ওঠানামা করে তবুও সেই শেষ সময়ে দাম পাওয়া যায় সেটিকে বর্তমান সময়ের দাম হিসেবে গণ্য করা হয়। নতুন দাম হিসেবে ২২ ক্যারেটের স্বর্ণের দাম হচ্ছে 71,960 টাকা।

২১ ক্যারেট সোনার দাম

২১ ক্যারেট সোনা ২২ ক্যারেট সোনার তুলনায় একটু কম ভালো তবে। ২১ ক্যারেট এবং ২২ ক্যারেট সোনা অনেকটা কাছাকাছি এবং এর দাম অনেকটা কাছাকাছি থাকে। বলতে পারেন না ২১ ক্যারেট এবং ২২ ক্যারেট সোনা ১৯/২০ এর মধ্যে পার্থক্য মত।

২১ ক্যারেট সোনার পিউরিটি হচ্ছে ৮৭.৫০%। আর এই ২১ ক্যারেট স্বর্ণের দাম হচ্ছে 68,811 টাকা। যাদের বাজেট একটু কম তারা ২১ ক্যারেট এর সোনা কিনতে পারেন।

১৮ ক্যারেট সোনার দাম

মধ্যবিত্ত পরিবারের সকল মানুষেরই একটা স্বপ্ন থাকে তারা স্বর্ণ কিনবে। তাদের এই স্বপ্ন পূরণ করার জন্য তারা সারা বছর তাদের অর্থকে সঞ্চয় করে রাখে। তবে তাদের এই সঞ্চয় তাদের স্বপ্নকে পূরণ করতে না পারলেও স্বপ্নকে পূর্ণতা দিয়ে থাকে। তাদের স্বপ্নকে পূর্ণতা দেওয়ার জন্য ১৮ ক্যারেট স্বর্ণ অন্যতম ভূমিকা রাখে। কারণ ২৪ ক্যারেট, ২১ ক্যারেট, ২২ ক্যারেট সোনা ভালো হলেও এর দাম অনেকটা বেশি, যা মধ্যবিত্ত পরিবারের মানুষকে তাক লাগিয়ে দেয়। ১৮ ক্যারেট স্বর্ণের পিউরিটি হচ্ছে ৭০.০০% এবং ১৮ ক্যারেট সোনার দাম 60,064 টাকা।

১ ভরি সোনার দাম কত

সোনা ক্যারেট হিসেবে পাওয়া যায়। তবে সোনা বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ভরি হিসাবে বিক্রয় হয় । সোনার যেসকল ক্যারেট পাওয়া যায় সব ধরনের ক্যারাটে ভরি রয়েছে। ক্যারেট হিসাবের ভরিতে দামের রূপান্তর করা হয়। তাই আমরা সকল ধরনের ক্যারেট স্বর্ণের ভরি হিসাবে দাম জেনে থাকি। নিম্নে সকল ধরনের ক্যারেট সোনার ভরি হিসেবে সোনার দাম নির্ণয় করা হলো।

২২ ক্যারেট = প্রতি ভরি 71,960 টাকা।২১ ক্যারেট = প্রতি ভরি 68,811 টাকা।১৮ ক্যারেট = প্রতি ভরি 60,064 টাকা।সনাতন পদ্ধতিতে = প্রতি ভরি 49,742 টাকা।

বর্তমানে সনাতন পদ্ধতির তুলনায় প্রতি ক্যারেট অনুসারে ১ ভরি সোনার দাম ২,০৪১ টাকা বৃদ্ধি পেয়েছে।

আজকের রুপোর দাম

স্বর্ণের দামের বৃদ্ধি হওয়ার সাথে সাথে রুপোর দাম বৃদ্ধি হয়। সাধারন পরিবারের বিয়েতে রুপার উপর সোনার প্রলেপ লাগানো গহনা তৈরি করে দেয় হয়। কারণ বর্তমানে স্বর্ণের দাম অনেক বেশি হয়। তাই মধ্যবিত্ত এবং সাধারন পরিবারের মানুষ রুপার দিকে বেশি ঝুঁকছে। আর এর জন্য রুপোর দাম ভালোই বৃদ্ধি পেয়েছে।

চলুন জেনে নেই রুপোর দাম কত? ক্যারেট অনুসারে প্রতি ভরি স্বর্ণের দাম হচ্ছে-

২২ ক্যারেট = প্রতি ভরি ১,৫১৬ টাকা।২১ ক্যারেট = প্রতি ভরি ১,৪৩৫ টাকা।১৮ ক্যারেট = প্রতি ভরি ১,৪৩৫ টাকা।সনাতন পদ্ধতিতে রুপার প্রতি ভরি ৯৩৩ টাকা।

স্বর্ণের হিসাবস্বর্ণের সঠিক হিসাব অনেকে জানে না। তাই আমরা আপনাদের জন্য স্বর্ণের সঠিক হিসেব নিয়ে এসেছি। প্রতি ভরি হিসেবে নিম্নে দেয়া হলঃ

বাংলাদেশে এ হিসেব ব্যবহার করা হয়-

১ ভরি = ১৬ আনা।১ ভরি = ৯৬ রতি।১ আনা = ৬ রতি।

আন্তর্জাতিক পরিমাপের এ হিসেব করা হয়-১ আউন্স = ২.৪৩০৫ ভরি।১ আউন্স = ২৮.৩৪৯৫ গ্রাম।১ ভরি = ০.৪১১৪৩ আউন্স।১ ভরি = ১১.৬৬৩৮ গ্রাম।১০ গ্রাম সোনার দাম কত?১১,৬৬৪/১০ = ১১৬৬.৪ ভরি।

দিন দিন সোনা ও রুপার দাম অধিক হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। যা সারা বিশ্বে প্রভাব ফেলছে। আন্তজাতিক বাজারেও সোনার দাম ব্যাপক হারে বৃদ্ধি হচ্ছে। আর এর প্রভাব প্রতিটা দেশে ফেলছে। অন্যদিকে করোনা কালীন সময়ে স্বর্ণের দাম কমার তুলনায় উল্টোদিকে আরও বৃদ্ধি পাচ্ছে। করোনা যেন সোনা বাজার আরও সতেজ করে দিয়েছে।

আপনারা যদি সোনা বা রুপা কিনতে চান তাহলে এখনই কিনে নেয়া ভ্ল হবে নতুবা আরও দাম বৃদ্ধি পাবে। কারন যত দিন যাবে তত বাজার মূল্য ব্রদ্ধি পাবে।

পাঠকের মতামত:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

অর্থনীতি এর সর্বশেষ খবর

অর্থনীতি - এর সব খবর



রে