ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারি ২০২২, ১৫ মাঘ ১৪২৮

আবারও হতাশ হয়ে ফিরলেন মুশফিক

২০২১ নভেম্বর ২৭ ১১:৪৩:৩৬
আবারও হতাশ হয়ে ফিরলেন মুশফিক

চট্টগ্রাম থেকে: নিজেকে দুর্ভাগা ভাবতেই পারেন মুশফিকুর রহিম! ফাহিম আশরাফের গুড লেংথের বল দেখে ব্যাট টেনে নিয়েছিলেন। কিন্তু দেরি হয়ে গেল কিছুটা। বল ব্যাটের বাহিরের কানা ছুয়ে জমা পড়ল উইকেটরক্ষকের হাতে। পুরো ইনিংসজুড়ে এই একটা শটই হয়তো ঠিকঠাক খেলতে পারলেন না মুশফিক, তাতেই আউট। অল্পের জন্য সেঞ্চুরি মিস হয়ে গেল অভিজ্ঞ ক্রিকেটারের। তবে সেঞ্চুরি না হলেও মুশফিক যেমন খেললেন সেটাও কম কিসে!

কদিন আগে শেষ হওয়া পাকিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের দলে রাখা হয়নি তাকে। পরে মুশফিক গণমাধ্যমকে জানিয়েছিলেন ‘বাদ দেওয়া হয়েছে’ তাকে। এটাও বলেছিলেন, পারফরম্যান্সেই এর জবাব দিবেন। কথা রাখলেন মুশফিক। টি-টোয়েন্টি দল থেকে ‘বাদ’ পরার পরে মাঠে নেমেই খেললেন ৯১ রানের দুর্দান্ত একটা ইনিংস।

গত জিম্বাবুয়ে সিরিজের পর থেকেই অবশ্য প্রত্যাশিত পারফর্ম করতে পারছিলেন না মুশফিক। করোনাভাইরাস প্রটোকলের জন্য ঘরের মাঠে অস্ট্রেলিয়া সিরিজ খেলতে পারেননি। নিউজিল্যান্ড সিরিজ খেললেও ব্যাট হাসেনি। বিশ্বকাপে ছিলেন পুরো ব্যর্থ। এসব কারণেই কিনা পাকিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের দলে জায়গা হলো না অভিজ্ঞ ব্যাটারের! কিন্তু তার পর্যায়ের ব্যাটারের অফ ফর্ম দীর্ঘস্থায়ী যে হতে পারে না চট্টগ্রামে সেটাই বুঝালেন মুশফিক।

চট্টগ্রামে আগে ব্যাটিংয়ে নেমে ৪৯ রানে তিন উইকেট হারিয়ে ধুঁকছিল বাংলাদেশ। সেখান থেকে বাংলাদেশ যে শক্ত অবস্থানে থেকে দিন শেষ করতে পারল তাতে মুশফিকের বড় অবদান। দলের ধসের মধ্যে দুর্দান্ত প্রতিরোধ গড়ে তোলেন অভিজ্ঞ ক্রিকেটার। গতকাল দলের বাজে সময়ে নিজের ইনিংসের শুরুতে স্রেফ উইকেটে পড়ে থাকতে চেয়েছেন। প্রথম ৬ রান করতে খেলেছিলেন ৫১ বল। পরে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে হাত খুলেছেন।

আজ দ্বিতীয় দিনের শুরুতেও দ্রুত উইকেট হারিয়ে ছন্দপতন ঘটে বাংলাদেশের। তখনও রানের চিন্তা বাদ দিয়ে স্রেফ উইকেটে পড়ে থাকতে চাইলেন মুশফিক। আজ ৩৫ বল খেলে করেছেন মাত্র ৯ রান। যেভাবে খেলছিলেন মনে হচ্ছিল সেঞ্চুরি পেরিয়ে অনেকটা দূর এগিয়ে যাবেন। কিন্তু ফাহিম আশরাফের সেই বলটা ঠিকমতো খেলতে না পারাটাই কাল হলো তার জন্য। বিজ্ঞাপন

ফেরার আগে ২২৫ বল খেলে ৯১ রান করেছেন মুশফিক। তার ইনিংসে চারের মার ১১টি। টেস্ট ক্রিকেটে মুশফিকের এটা ২৪তম হাফ সেঞ্চুরি।

সেঞ্চুরি মিসের সঙ্গে মুশফিক অন্য একটা অর্জনও মিস করেছেন আজ। আর মাত্র ২ রান করতে পারলেই তামিম ইকবালকে ছাড়িয়ে বাংলাদেশের পক্ষে সবচেয়ে বেশি টেস্ট রানের মালিক বনে যেতেন মুশি। দ্বিতীয় ইনিংসে অবশ্য তামিমকে ছাড়িয়ে যাওয়ার সুযোগ পাবেন তিনি। বিজ্ঞাপন

টেস্টে মুশফিকের বর্তমান রান ৪ হাজার ৭৮৭। তামিমের রান ৪ হাজার ৭৮৮। তামিম অবশ্য ম্যাচ খেলেছেন ৬৪টি, অন্য দিকে মুশফিক ম্যাচ খেলেছেন ৭৬টি (চট্টগ্রাম টেস্টে ব্যাট করেছেন এক ইনিংস)।

পাঠকের মতামত:

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর



রে